প্রচ্ছদ / প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর / রাঙ্গুনিয়ায় পূর্ব শত্রুতার জের ধরে হত্যার চেষ্টায় এক ব্যক্তি আটক।

রাঙ্গুনিয়ায় পূর্ব শত্রুতার জের ধরে হত্যার চেষ্টায় এক ব্যক্তি আটক।

মফিজুর রহমান লিমন:

চট্টগ্রাম জেলাধীন রাঙ্গুনিয়া উপজেলায় পূর্ব শত্রুতার জের ধরে মো: রহমত উল্লাহ (৪০) নামে এক ব্যক্তিকে প্রতিবেশি ৫ সদস্য মিলে অতর্কিত হামলা করে হত্যার চেষ্টা করে। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে মো: রহমত উল্লাহ বাদী হয়ে রাঙ্গুনিয়া মডেল থানায় হামলাকারীদের বিরুদ্ধে মামলা করেন। মামলা নং-০৩, তারিখ : ০৭/০২/২০১৯খ্রি.। মামলার আসামীরা হলো মো: হারুন সিকদার (৫৫), মো: মুরাদ সিকদার (২৫), মো: মোরশেদ সিকদার (২৭), মরিয়ম বেগম (৫০) ও নাজমা বেগম (২৯) উভয়ের ঠিকানা সিকদার বাড়ী, সাং- শিলক রাজাপাড়া, ০১নং ইউনিয়ন, রাঙ্গুনিয়া, চট্টগ্রাম। পরবর্তীতে আসামীরা চট্টগ্রাম আদালতে গিয়ে আগাম জামীনের জন্য আবেদন করলে উক্ত মামলার ০১নং আসামী মো: হারুন সিকদারকে জামিন না মঞ্জুর করে জেল হাজতে প্রেরণ করে এবং অপর ৪ আসামীদের সাময়িকভাবে জামিন মঞ্জুর করে আদালত।
জানা যায়, গত ৪/০২/২০১৯খ্রি. তারিখ রাত আনুমানিক ৮.০০ঘটিকার দিকে মো: রহমত উল্লাহ (৪০) স্থানীয় শিলক আমতলা বাজারে ধান বিক্রি করে বাড়ি ফেরার সময় সিকদার বাড়ী এলাকায় পৌঁছালে পূর্বে থেকে ওত পেতে থাকা প্রতিবেশি ৫ সদস্য মিলে তার উপর অতর্কিতভাবে হামলা চালায়। এসময় তারা সম্মিলিতভাবে দেশিয় অস্ত্র লোহার রড়, লাঠি ও কিরিচ নিয়ে এলোপাতাড়িভাবে তাকে মারধর করতে থাকে। তাদের হামলায় গুরুতর আহত হন মো: রহমত উল্লাহ। হামলার এক পর্যায়ে মো: রহমত উল্লাহর চেচামেচি শুনে আর এক প্রতিবেশি রাঙ্গুনিয়া মডেল থানায় খবর দিলে পুলিশ এসে মো: রহমত উল্লাহকে গুরুতর অবস্থায় উদ্ধার করে। তার অবস্থা আশংকা জনক দেখে পুলিশ তাকে দ্রুত চট্টগ্রাম মেডিকেল হাসপাতালে উন্নত চিকিৎসার জন্য প্রেরণ করে। মামলার বাদী মো: রহমত উল্লাহর সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, আমার উপর অতর্কিত হামলায় অংশগ্রহণকারীদের সাথে পূর্বে থেকে জায়গা জমিন ও ভিসা নিয়ে বিরোধ চলছিল। তাদের কাছে আমি অনেক টাকা পাই। পাওনা টাকা আদায় করাকে কেন্দ্র করে তারা আমার উপর পরিকল্পিতভাবে হত্যার উদ্দেশ্যে হামলা চালায়। শুধু তাই নয় হামলার সময় আমার কাছে থাকা ধান বিক্রির নগদ ৪০,০০০/-চল্লিশ হাজা টাকা ছিল তাও ছিনিয়ে নিয়ে গেছে। তাদের কাছে আমি বাঁচার জন্য অনেক আকুতি জানালেও তাদের কারও মন গলেনি। হামলার সময় আমার আরেক প্রতিবেশি আমার আত্মচিৎকার শুনে থানায় খবর না দিলে তারা আমাকে ওই সময় মেরেই ফেলত। যাই হোক আল্লাহর অশেষ রহমতে পুলিশ সময়মত ঘটনাস্থলে আসতে পেরেছে বিধায় আমি বেছে গেছি। তিনি আরও জানা জামিনে মুক্তি পাওয়া অন্য আসামিরা দেশ ছেড়ে পালানোর চেষ্টা করছে। মামলার ৫ আসামীদের সাথে যোগাযোগ করলে তারা এ মুহুর্তে কেউ কোন মন্তব্য করতে রাজি হয়নি। রাঙ্গুনিয়া মডেল থানায় কর্মরত উক্ত মামলার দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা উপ-পরিদর্শক মুহাম্মদ ইসমাঈল হোসাইন (জুয়েল) জানান, ৫জন আসামীর মধ্যে বর্তমানে ১নং আসামী মো: হারুন সিকদার জেল হাজতে আছে; অপর আসামীগণ জামিনে মুক্ত আছেন।

About arthonitee

Check Also

লালমাই প্রেস ক্লাব এর ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত

ইউনিভার্সেল কামাল (লালমাই) গতকাল শনিবার লালমাই উপজেলায় বাগমারা বাজারে লালমাই প্রেস ক্লাব এর ইফতার মাহফিলের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *